মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২৬, ২০২১ : ৯:৪৬ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

তৃণমূল গোছিয়ে বিএনপি অবৈধ সরকারের পতন ঘটাবে : মির্জা ফখরুল ইসলাম

bnp-council-400x276স্টাফ রিপোর্টার: তৃণমূল থেকে আন্দোলন শুরু করে বর্তমান ফ্যাসিবাদী সরকারকে হটানো সম্ভব বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গতকাল রোববার সকালে সিলেট মহানগরের কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের শহীদ সোলেমান হলে দলটির জেলা-মহানগরের কাউন্সিলে তিনি এ মন্তব্য করেন।
মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার জোর করে ক্ষমতায় থাকার কারণে দেশে খুন, গুম ও অপহরণ বেড়েছে। তিনি আরও বলেন, সরকার বিচার বিভাগকে নিয়ন্ত্রণ করে ফ্যাসিবাদী কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে, দেশ এখন মহাবিপদের মধ্যে আছে। এই ভয়াবহ বিপদ থেকে দেশকে রক্ষা করার এখনই সময়। তৃণমূল থেকে আন্দোলন করে এই সরকারকে হটানো সম্ভব হবে। তৃণমূল গোছিয়ে বিএনপি দেশের আপামর জনসাধারণকে নিয়ে এই স্বৈরাচার সরকারের পতন ঘটানো হবে।
বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেন, প্রধান বিচারপতি যখন রাষ্ট্রপতির বাসভবনে যান, তখন আইনের শাসন লঙ্ঘিত হয়। দেশে এখন সংবিধানও সংরক্ষিত নয়। তিনি আরো বলেন, বিচারবিভাগ স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারছে না। চারদিকে জুলুম নির্যাতনে মানুষ আক্রান্ত। সবচেয়ে ভরসার স্থল বিচারবিভাগ থেকেও মানুষ আস্থা হারিয়ে  ফেলেছে।
আওয়ামী লীগ দেশে নির্বাচনের মাধ্যমে গণভোট ডাকাতি করেছে মন্তব্য করে মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী সরকার অবৈধ। তারা পুলিশ দিয়ে জোর করে ক্ষমতায় টিকে আছে। তাই দেশে গুম, খুন ও অপহরণ বেড়েছে।
সিলেটে বিএনপির কাউন্সিলকে দেশ ও দলের জন্য মাইলফলক উল্লেখ করে বিএনপির শীর্ষ এই নেতা বলেন, সরকার পুলিশ দিয়ে দেশে অপকর্ম শুরু করেছে। এই অপকর্ম বন্ধে দেশের মানুষ আজ ঐক্যবদ্ধ। দুর্বার আন্দোলনের মাধ্যমে এই জালিম সরকারের পতন ঘটানো হবে।
ফখরুল ইসলাম বলেন, প্রহসনের নির্বাচনের মাধ্যমে সরকার ক্ষমতা আকড়ে থাকার প্রক্রিয়াই সম্পন্ন হয়েছে। মানুষের অধিকার প্রতিষ্টিত হয়নি। তাই বাংলাদেশের মানুষ স্বাধীনভাবে চলাফেরা করতে পারছে না।
সিলেট জেলা বিএনপির আহবায়ক ও নির্বাচন পরিচালনায় গঠিত কমিটির কমিশনার অ্যাডভোকেট নূরুল হকের সভাপতিত্বে ও কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক শাখাওয়াত হাসান জীবনের পরিচালনায় সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ইনাম আহমেদ চৌধুরী, যুগ্ম সম্পাদক মো. শাহজাহান, নিখোঁজ বিএনপি নেতা এম ইলিয়াস আলীর সহধর্মিনী তাহসীনা রুশদীর লোনা, কেন্দ্রীয় নেত্রী ও সাবেক সংসদ সদস্য খালেদা রাব্বানী, সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক কলিম উদ্দিন মিলন, কেন্দ্রীয় সদস্য ও সাবেক সংসদ সদস্য শফি আহমদ চৌধুরী, দিলদার হোসেন সেলিম প্রমুখ।
এর আগে সকাল ১০টায় জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে কাউন্সিলের প্রথম অধিবেশন শুরু হয়। কাউন্সিলের দ্বিতীয় অধিবেশনে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে গোপন ব্যালেটের মাধ্যমে ভোটাদের ভোট গ্রহণ শুরু হয়। দুপুর ১২টার দিকে ভোগগ্রহণ শেষ হয়। এর আগে কঠোর নিরাপত্তায় জেলা ও মহানগর বিএনপির সম্মেলন শুরু হয়। এই অধিবেশনে সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপির নতুন নেতৃত্ব নির্বাচন করতে সরাসরি ভোট দেন মোট ১৩২ কাউন্সিলর।
এদিকে, সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপিতে নতুন নেতৃত্ব এসেছে। জেলা বিএনপির সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন আবুল কাহের শামীম। আর সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন আলী আহমদ। মহানগর বিএনপির সভাপতি হয়েছেন নাসিম হোসাইন। এ শাখার সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন বদরুজ্জামান সেলিম। জেলা-মহানগরের কাউন্সিলে ভোটাভুটির পর এ নতুন নেতৃত্ব ঘোষণা করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে নতুন কমিটি ঘোষণা করেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। দুই শাখার কমিটিতেই সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ছাড়াও সাংগঠনিক পদে নেতৃত্ব ঘোষণা করা হয়।
ভোটগ্রহণের সময় কেন্দ্রের ভেতরে কেবল কাউন্সিলর, নির্বাচন কর্মকর্তা ও প্রার্থীরা ছাড়া কাউকে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। প্রধান ফটকসহ আশপাশের এলাকায় ছিল পুলিশের কড়া নিরাপত্তা। পুলিশের সাজোয়া যানের নিয়মিত টহলও লক্ষ্য করা যায়।
গত শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দিতে সিলেটে আসেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সিলেট এসে তিনি রাতেই হযরত শাহজালাল (রহ.) এর মাজার জিয়ারত করেন। সেখান থেকে হযরত শাহপরান (রহ.) এর মাজার জিয়ারত করেন।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

সেই রাবি শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রীর যৌন হয়রানির অভিযোগ

আত্মহত্যা’ করা রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আকতার জাহান জলির সাবেক …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open