বুধবার, ডিসেম্বর ৮, ২০২১ : ৪:৪৫ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

কেন্দ্রের নির্দেশনা মানছেন না সিলেট আ.লীগের নেতাকর্মীরা

ব্যানার-পেস্টারে বড় হচ্ছেন তারা

1212111 ডেস্ক রিপোর্ট :: নতুন সাজে সেজেছে নগর সিলেট। অলি-গলিতে শোভা পাচ্ছে নানা রং আর বর্ণের ব্যানার-ফেস্টুন, পোস্টার ও প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানিয়ে নির্মাণ করা তোরণ।
প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে স্বাগত জানিয়ে কার কত বড় ছবি দিয়ে ব্যানার-ফেস্টুন তৈরি করবেন এ প্রতিযোগিতায় এখন সিলেট আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।
দলীয় প্রধান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবিসহ এসব ব্যানার ফেস্টুন ও তোরণে নিজেদের ছবি না লাগানোর জন্য আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে দলীয় নেতাকর্মীদের কড়া ভাষায় নির্দেশনা দিলেও কেউই মানছেন না, এ নির্দেশ। বরং নির্দেশনার পর অন্যান্য বছরের চেয়ে এবার আরও বিশাল আকারের ছবি ব্যবহার করা হচ্ছে ব্যানার-ফেস্টুনগুলোতে। আবার কোন কোনটিতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি ছোট করে নিজেকে প্রকাশের মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে এসব ব্যানার।
জানা যায়, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে তা গত ১৪ ডিসেম্বর  জেলা, মহানগর,পৌর ও উপজেলা আওয়ামী লীগসহ সহযোগী সংগঠনের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক, আহ্বায়ক ও যুগ্ম আহ্বায়ক বরাবরে প্রেরণ করা হয়। উক্ত চিঠির মাধ্যমে তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করেন ও এসব ব্যানার ফেস্টুন না ছাপানোর জন্য নেতা-কর্মীদের নির্দেশ দেন।
শুধু নগরীতেই নয় উপজেলার গ্রামে গঞ্জেও শোভা পাচ্ছে এসব ব্যানার ফেস্টুন। দলীয় নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন শিক্ষ প্রতিষ্ঠান ও প্রতিষ্ঠান প্রধানের পক্ষ থেকেও গেইট নির্মাণ করা হচ্ছে।
প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানিয়ে তোরণ নির্মাণ করেছে সরকারি আলিয়া মাদরাসা সিলেট, বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি সিলেট-জেলা ও মহানগর শাখা, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহি উদ্দিন সেলিমসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতারা।
ওই সব ব্যানার, ফেস্টুন ও তোরণের বেশিরভাগেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও দলীয় সভানেত্রীর ছবি ছোট করে নিজেদের ছবি ছাপিয়েছেন যা দেখতে অনেকটা দৃষ্টিকটু।
নগরীর রিকাবীবাজারস্থ নজরুল চত্বরের পাশেই আওয়ামী যুবলীগ সিলেট মহানগর শাখার আহ্বায়ক আলম খান মুক্তির ছবি সম্বলিত একটি ডিজিটাল ব্যানার দেখা গেছে এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে তিনি সবুজ সিলেটকে জানান, ‘নেত্রীর সিলেট শুভাগমন উপলক্ষে আনন্দিত হয়ে দলীয় নেতাকর্মীদের উজ্জ্বীবিত করার জন্য এ ব্যানারটি সাঁটানো হয়েছে। তাছাড়া আমার দেয়া ব্যানারে দলীয় সভানেত্রীর ছবি বড় করে ছাপানো হয়েছে।’
নির্দেশনা সম্ভলিত দলীয় সাধারণ সম্পাদকের পাঠানো চিঠি পাওয়ার কথা নিশ্চিত করে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদরউদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, ‘দলীয় সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সিলেট আগমন উপলক্ষে এসব ব্যানার ফেস্টুন আমারও চোখে পড়েছে। প্রধানমন্ত্রীর সফর শেষ হওয়া মাত্রই নেতা-কর্মীদের এসব ব্যানার ফেস্টুন সরিয়ে নিতে অনুরোধ করবো।’
এদিকে প্রধানমন্ত্রীর সিলেট সফর সফলে শুধু সিলেট জেলা নয়, বিভাগের চারটি জেলায় দলীয় নেতাকর্মীরা প্রস্তুতি সভা ও কর্মী সমাবেশ ও প্রতিনিধি সমাবেশ করে লাখো মানুষের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে তৎপরতা চালাচ্ছেন। আগামীকাল বৃহস্পতিবার সিলেটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনসভায় লাখো মানুষের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে ক্ষমতাসীন দলটির নেতাকর্মীরা এখন আরামের ঘুম হারাম করে প্রচারণা চালাচ্ছেন।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

ব্রিটিশ ভিসা সেন্টার নিয়ে সিলেটে যা বললেন রুশনারা আলী

সংক্ষিপ্ত সফরে সিলেটে অবস্থান করছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশ বিষয়ক বাণিজ্যদূত ও ব্রিটিশ পার্লামেন্টের এমপি রুশনারা …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open