বুধবার, ডিসেম্বর ৮, ২০২১ : ৪:৪৪ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

সিলেটে যুবলীগের প্রতিনিধি সভায় ওমর ফারুক চৌধুরী-বিএনপি মিথ্যাচারের দল

03স্টাফ রিপোর্টার :: বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ওমর ফারুক চৌধুরী বলেছেন,‘ বিএনপিতে অনেক শিক্ষিত রাজনীতিবিদ আছেন, কিন্তু তাদের সাধারণ জ্ঞান নেই। এই সাধারণ জ্ঞানই এক অসাধারণ জ্ঞান। যা তাদের নেই। তাই তারা গায়ের জোরে মিথ্যাচার করে যাচ্ছে। মহান মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের নিয়ে মিথ্যাচার। আসলে বিএনপি মিথ্যাচারের দল।’ তিনি গতকাল সোমবার বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আগমণ উপলক্ষ্যে সিলেটের  নজরুল ইসলাম অডিটোরিয়ামে সিলেট জেলা ও মহানগর যুবলীগের প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।
ওমর ফারুক চৌধুরী বলেন,‘ বিএনপি নেতা গায়েশ্বর শহীদদের নিয়ে গায়ের স্বরে মিথ্যা কথা বলে বেড়াচ্ছেন। এসবে কাজ হবে না। পাকিস্তানের পরাজিত শক্তি খালেদা, বিএনপি ও জঙ্গিদের দিয়ে ষড়যন্ত্র করতে চায়। কিন্তু আওয়ামী লীগ ষড়যন্ত্র ভয় করে না।’
ওমর ফারুক আরও বলেন,‘ জামায়াত-বিএনপি বাইরে দেখায় কুস্তি, আসলে ভেতরে ভেতরে ঠিকই তাদের দোস্তি। ওদের কাছ থেকে সাবধান। জামাত তো বলেছিল, সাকার ফাসি দিতে পারবে না, ফাঁসি হয়েই গেল, এখনোও ভুল করেই বলে, না সাকার মতো নেতার ফাঁসি দিতে পারবে না।’ তিনি এরশাদকে উদ্দেশ্য করে বলেন,‘ এরশাদ, এটা কী খায়, হেইটাই বুঝি না। সকালে এক কথা বলে, বিকেলে আরেক কথা। বিরাট উদ্ভট !’
ওমর ফারুক বলেন,‘ বিএনপি সংলাপের নামে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে। আমরা তার সংলাপে রাজি। তবে, জঙ্গিবাদের নাম সংলাপ নয়। এসব পরিহার করে আসতে হবে। শেখ হাসিনা খালেদাকে সংলাপে বসার জন্য টেলিফোন করেছিলেন, তাঁর প্রস্তাবকে খালেদা ফিরিয়ে দিলেন। এখন সংলাপ, সংলাপ করছেন। কেনো ?
ওমর ফারুক বলেন, প্রধানমন্ত্রী-জননেত্রী শেখ হাসিনা ২০০৮ সালে রাষ্ট্র ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত হওয়ার পর অত্যন্ত দ্রুততার সাথে দেশ ও জাতিকে প্রত্যাশিত লক্ষ্যের দিকে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন। তাঁর উন্নয়নের অগ্রযাত্রাকে বাধাগ্রস্ত করতে বিএনপি-জামায়াত নামক অপশক্তি ধারাবাহিকভাবে ষড়যন্ত্র ও নানারকম ঘৃণ্য অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।’
যুবলীগ চেয়ারম্যান আরও বলেন, রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার দুরদর্শী চিন্তা, দৃঢ়চেতা ও বিচক্ষণ নেতৃত্ব, সূচিন্তিত পরিকল্পনা ও সীমাহীন দেশপ্রেম-এর কারণে সামাজিক, অর্থনৈতিক ও অবকাঠামো উন্নয়নে বিষ্ময় সৃষ্টি করেছে বাংলাদেশ। সামাজিক, রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে বিরাজ করছে নজিরবিহিন স্থিতিশীলতা। আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে দেশের অবস্থান এখন অত্যন্ত সম্মানজনক অবস্থানে অধিষ্ঠিত।’
ওমর ফারুক চৌধুরী বলেন, রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার সুযোগ্য নেতৃত্বে নিজস্ব অর্থায়নে স্বপ্নের পদ্মা সেতু নির্মিত হচ্ছে। একের পর এক ফ্লাইওভার মেট্রো রেল, এলিভেটেড এক্সপ্রেস ওয়ে-র নির্মান কাজ দ্রুততার সাথে এগিয়ে চলেছে। ভারতের সাথে দীর্ঘ ৪০ বছরের স্থল সীমান্ত সমস্যার সমাধান হয়েছে। ভারত ও মায়ানমারের সাথে সমূদ্র সীমানা বিরোধ নিষ্পত্তি হয়েছে। এর ফলে সমুদ্রে ১ লাখ ১৮ হাজার ৮১৩ বর্গ কিলোমিটার এলাকায় বাংলাদেশের নিরঙ্কুশ অধিকার প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।’
বিদ্যুতের উন্নয়ন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বিদ্যুৎ উৎপাদনে সক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়ে আজ ১৪ হাজার ৭৭ মেঘাওয়াটে দাড়িয়েছে। ফলে  বাংলাদেশের মানুষ বিদ্যুতের লোডশেডিং এর কথা ভুলতে বসেছে। তিনি আরও বলেন, উত্তরাঞ্চলে প্রতি বছরের নিয়মিত মঙ্গার অস্তিত্ব এখন শুধু ডিকশনারীর পাতায় খুঁজে পাওয়া যাবে। বাংলাদেশের মানুষ আজ আর মঙ্গা শব্দটির সঙ্গে পরিচিত নয়। ’
দেশের শিক্ষাক্ষেত্রে অভাবিত অগ্রগতি সাধিত হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, বছরের প্রথম দিনে ১ম শ্রেণী থেকে ১০ম শ্রেণী পর্যন্ত সকল ছাত্র-ছাত্রীর মধ্যে সকল পাঠ্যপুস্তক বিনামূল্যে বিতরণ করে বর্তমান সরকার এক বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। বর্তমান সরকারের আমলে দেশে ২৩ হাজার ৩৩১টি বিদ্যালয়ে মালটি মিডিয়া ক্লাশরুম চালু হয়েছে। সারা দেশের স্কুলগুলোতে ২৫ হাজার ৫০০ কম্পিউটার ল্যাব প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।
সরকারের উদ্দোগে ১৬ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত ডিজিটাল বাংলাদেশ আজ আর স্বপ্ন নয় দেশের প্রতিটি মানুষ ডিজিটাল বাংলাদেশের সেবা পাচ্ছেন এবং সুবিধা ভোগ করছেন।
তিনি সিলেটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফর প্রসঙ্গে বলেন,‘ আগে শীতকালে সবজি পাওয়া যেতো, এখন বাংলাদেশে বারো মাসই সবজি ফলে। দেশে এখন ২৯ প্রজাতির ধান উৎপাদন হয়। তারই নাম উন্নয়ন, তারই নাম শেখ হাসিনা। তাই আগামী ২১ জানুয়ারি সিলেটের আলিয়া মাদ্রাসার মাঠে তাঁকে সম্মানিত করতে দলে দলে যোগ দিন।’
সিলেট মহানগর যুবলীগের সভাপতি আলম খান মুক্তি’র সভাপতিত্বে ও সিলেট জেলা যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক খোন্দকার মহসিন কামরানের সঞ্চালনায় সভায় প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন, বাংরাদেশ আওয়ামী যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ। বিশেষ বক্তার বক্তব্য রাখেন, জাতিসংঘ বাংলাদেশের মিশনের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি ড. এ কে এ মোমেন ও বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. আহমদ আল কবির, যুবলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক আতিক, সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌদুরী কয়েস, সাংসদ আমাতুল কিবরিয়া চৌধুরী কেয়া ও যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী।
বক্তব্য রাখেন, যুবলীগ প্রেসিডিয়াম সদস্য, শহীদ সেরনিয়াবাদ, মুজিবুর রহমান চৌধুরী, মাহাবুবুর রহমান হিরন, ড. আহম্মদ আল কবির, আনোয়ার হোসাইন, ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমন, আসাদুল হক আসাদ, সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য কাজী আনিসুর রহমান, মিজানুল ইসলাম মিজু, রফিকুল ইসলাম চৌধুরী, সহ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় সদস্য এন.আই আহম্মেদ সৈকত, রেকায়েত আলী খাঁন নিয়ন, মুক্তাদির রহমান শিমুল, ঢাকা মহানগর যুবলীগ উত্তর সভাপতি মাঈনুল হোসেন খাঁন নিখিল, সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন প্রমূখ।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

ব্রিটিশ ভিসা সেন্টার নিয়ে সিলেটে যা বললেন রুশনারা আলী

সংক্ষিপ্ত সফরে সিলেটে অবস্থান করছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশ বিষয়ক বাণিজ্যদূত ও ব্রিটিশ পার্লামেন্টের এমপি রুশনারা …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open