মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৭, ২০২০ : ১২:৪৫ অপরাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

আইএস কী আমি চিনি না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

kamal1_95711ডেস্ক রিপোর্ট: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, আইএস কী আমি চিনি না। বাংলাদেশে আইএসের কোনো জায়গা নেই। বাংলাদেশের ৯০ ভাগ মানুষ হচ্ছে মুসলমান। আর এই মুসলমানের দেশে আইএস ও জঙ্গিবাদের জায়গা হতে পারে না।আজ বুধবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে রাজধানীর ফার্মগেটে কৃষি ইনস্টিটিউটে আয়োজিত সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, ধর্মীয় ও ইসলামের অপব্যাখ্যার বিরুদ্ধে আলেম ওলামা-ইমাম ও খতিবদের সঙ্গে মতবিনিময় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা যখন বললাম, আলেম-ওলামাদের সঙ্গে আলোচনা করা প্রয়োজন তখন প্রধানমন্ত্রী আমাকে নির্দেশ দিলেন তুমি শুরু করে দাও। আলেম সমাজকে সঙ্গে নিয়ে আমরা আসন্ন দুর্যোগ কাটাতে পারবো।মন্ত্রী বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একজন আল্লাহভক্ত নেককার বান্দা। তিনি কোরআন-সুন্নাহর বাইরে কোনো কাজ করেন না। আল্লাহ তাকে নিজে হাতে বাঁচিয়েছেন ভালো কাজ করার জন্য। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলাসহ তাঁর ওপর ১৯ বারের মতো হামলা হয়েছে।তিনি বলেন, আমরা যখন নিজেদের পায়ে দাঁড়াচ্ছি তখন আমাদের উপর দৃষ্টি পড়েছে। যেমন দৃষ্টি পড়েছিল আফগানিস্তান, পাকিস্তান, লিবিয়া, সিরিয়া ও ইরাকের উপর। একটি মুসলিম দেশ যখন নিজের পায়ে দাঁড়াতে চেষ্টা করে, অর্থনৈতিকভাবে সামর্থ্যবান হওয়ার চেষ্টা করে তখন তাদের নিয়ে ষড়যন্ত্র শুরু হয়।স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যখন ইতালীয় নাগরিক তাভেল্লা সিজারকে হত্যা করা হলো তখন বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূতরা আমাকে বললেন, তোমার দেশে আইএস আছে। আমি তাদেরকে বলেছি, আইএস কী আমি চিনি না। একটি ওয়েবসাইটে খবর প্রকাশ করা হলো এটা আইএস করেছে। ওই ওয়েবসাইট পরিচালনা করেন একজন ইহুদি মহিলা। আমরা জাপানি নাগরিক হত্যা, পুলিশ হত্যা, ইমামবাড়ার বোমা হামলা দেখেছি। এছাড়াও আমরা মাওলানা ফারুকীকে গলাকেটে হত্যার দৃশ্য দেখেছি। প্রতিটি হত্যাকাণ্ড নাশকতা সৃষ্টির জন্য। কন্ট্রাক কিলিং। বিদেশ থেকে নির্দেশ এসেছে। আমাদের দেশ জঙ্গির দেশ নয়, আইএসের দেশ নয়।মতবিনিময় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল  ইসলাম বলেন, আল্লাহ বলেন আমাকে ভালোবাসতে হলে আগে আমার বান্দাকে ভালোবাস। বাংলাদেশের মানুষ ধর্মপ্রাণ। বাংলাদেশে তিন লাখ মসজিদ রয়েছে। জনসংখ্যার দিকে বাংলাদেশ পৃথিবীর দ্বিতীয় বৃহত্তর।আলেমদের উদ্দেশ্যে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, আপনারা নায়েবে রাসুল হিসেবে আপনাদের দায়িত্ব পালন করেন। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে মুসলমানদের হেয় করা যাচ্ছে। আমাদের দেশ আউলিয়াদের দেশ। কোনো আউলিয়া হাত পায়ের রগ কেটে ধর্ম প্রচার করেননি। যারমধ্যে দেশপ্রেম নেই তিনি সাচ্চা মুসলমান হতে পারবেন না।সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, ধর্মীয় ও ইসলামের অপব্যাখার বিরুদ্ধে আলেম ওলামা-ইমাম ও খতিবদের সঙ্গে মতবিনিময় অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন কিশোরগঞ্জ শোলাকিয়া ঈদগাহের খতিব আল্লামা ফরীদঊদ্দীন মাসঊদ, ঢাকা মহানগর পুলিশের কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া, অপস বিভাগের অতিরিক্তি কমিশনার শেখ মুহাম্মদ মারুফ হাসান প্রমুখ। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন তেজগাঁও কলেজের অধ্যক্ষ মো. মামুনুর রশীদ।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

বেতন স্কেল ১০ গ্রেডে উন্নীতকরণের দাবি প্রধান শিক্ষকদের

ডেস্ক রিপোর্ট :: দ্বিতীয় শ্রেণির গেজেটেড (নন-ক্যাডার) প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণবিহীন উভয় প্রধান শিক্ষকদের প্রবেশ পদে …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open