সোমবার, মে ১৭, ২০২১ : ৯:১১ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

কমলগঞ্জ পৌরসভায় মেয়র পদের প্রার্থীদের নিয়ে চায়ের কাপে ঝড়

indexপিন্টু দেবনাথ, কমলগঞ্জ :: কমলগঞ্জ পৌর নির্বাচন মধ্যবেলায় এসে স্রোত আর উল্টো স্রোতের মতোই বহমান। শেষে নদী ভাঙনের মতোই কোন দিকের তীর যে ভেঙ্গে যায় এ নিয়ে মেয়র সমর্থকরা শঙ্কিত, ভোটাররা বুঝে উঠতে পারছে না। এ নিয়ে ভোটার নামের আম পাবলিক পড়েছে মহাফাঁপরে। পৌর এলাকার একজন বললেন, ‘বাপুরে কি যে কারবার হচ্চে কোন দিকের ঢেউ কোন দিকে মোড় নিচ্ছে বুঝতে পারছিনা।মেয়র পদের হারজিতের হিসাব-নিকাশটিও তারচেয়ে বেশি। তারপরও মেয়রের গদিতে তো একজন বসবেন কে সেই ভাগ্যবান ! মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার পর ভোটারদের ধারণা ছিল সিটিং মেয়র বিএনপির আবু ইব্রাহিম জমসেদ এর সাথে এবার আওয়ামী লীগের ফাইটটি হবে হাড্ডাহাড্ডি। মনোনয়নে প্রার্থীতা প্রত্যাহারের পর ও বিএনপি’র বিদ্রোহী দুই প্রার্থী হাছিন আফরোজ চৌধুরী (জগ) ও সদ্য আওয়ামী যুবলীগ থেকে পদত্যাগকারী ও বিএনপি’র একটি অংশের সমর্থন পুষ্ট জাকারিয়া হাবিব বিপ্লব (নারিকেল গাছ) স্বতন্ত্র হিসেবে প্রার্থী হওয়ার কারণে আওয়ামীলীগ প্রার্থী বেশী সুবিধায় আছেন। আওয়ামী লীগের প্রার্থী মো. জুয়েল আহমেদ (নৌকা) এখন একক প্রার্থী হিসাবে ভালো অবস্থানে আছেন। তার প্রতিদ্বন্ধি হিসাবে শক্তিশালী মাঠে আরো ২ জন আছে। যে ২ জন আছেন (যদি ও আরো ৪ জন একজন বিএনপির বিদ্রোহী স্বতন্ত্র প্রার্থী হাছিন আফরোজ চৌধুরী (জগ), জাতীয় পার্টির প্রার্থী রফিকুল ইসলাম (লাঙ্গল) খেলাফত মজলিস সমর্থিত প্রভাষক নজরুল ইসলাম (দেওয়াল ঘড়ি), স্বতন্ত্র প্রার্থী মাসুক মিয়া (মোবাইল ফোন) আছেন তাদের তেমন ভোটের মাঠে প্রভাব নেই। এ অবস্থায় আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী জুয়েল আহমেদ এর প্রতিদ্বন্দী বিএনপি’র প্রার্থী আবু ইব্রাহিম জমসেদ (ধানের শীষ) স্বতন্ত্র প্রার্থী জাকারিয়া হাবিব বিপ্লব (নারিকেল গাছ)।নৌকা, ধানের শীষ ও নারিকেল গাছ প্রতীক এর বাইরে প্রতীকগুলো নিয়ে বেশ মজার করে কথা বলেন ভোটাররা। চায়ের কাপের ঝড়ের সঙ্গে মেয়র প্রার্থীদের ভোটের উত্থাণ-পতন মূহুর্তে মূহুর্তে ঘটছে ভোটারদের মূখে মুখে। স্থানীয় এক মুরব্বি নুর মিয়া বললেন আমরা এখন কোন দিক রেখে কোন দিকে যাই। যারা দাঁড়াইছে (প্রার্থী) হয়েছেন তারাই হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছেন। কোন প্রার্থীর অবস্থান কি তার জানার কৌতূহল আছে ভোটারদের মধ্যে। এ কৌতূহলে আওয়ামী লীগ সমর্থক একজন বললেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী ক্লিন ইমেজের মানুষ। তিনি আওয়ামীলীগ ছাড়া সুশীল সমাজ ও অন্য রাজনৈতিক দলের ও ভোট পাবেন। কমলগঞ্জ পৌরসভাকে ধলাই নদী দুই ভাগে বিভক্ত করে রেখেছে। এক ভাগে ৪ টি ও অপর ভাগে ৫ টি ওয়ার্ড রয়েছে। এর মধ্যে ৫ টি ওয়ার্ডের এলাকা থেকে মেয়র পদে শক্তিশালী প্রার্থী ৩ জন সহ আরো ২জনকে নিয়ে ৫ জন প্রার্থী অপর দিকে ৪ টি ওয়ার্ডের অবস্থানে শক্তিশালী ১ জন সহ আরো ১ জন মেয়র পদে প্রার্থী হয়েছেন। নদী তীরের গ্রামীণ জীবনযাত্রার একটা প্রভাব শহুরে জীবনের মতো পৌরসভাতেও পড়ে।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

বিশ্বনাথে ধর্ষণের অভিযোগে ইউপি মেম্বার গ্রেফতার

সিলেটের বিশ্বনাথে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ করার অভিযোগে উপজেলার দৌলতপুর ইউপির ১নং ওয়ার্ডে মেম্বার …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open