সোমবার, মে ১৭, ২০২১ : ৯:০৬ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

ঝালকাঠির রাজাপুরে একযুগ ধরে ভাঙ্গা ব্রীজ পারাপার হয় সাঁকো দিয়ে ॥ চরম দুর্ভোগে এলাকাবাসী

Rajapur-photoমোঃ আল-আমিন ঝালকাঠিঃ সাধারণ মানুষ নদী বা খাল পারাপারের জন্য ব্রীজ ব্যবহার করে কিন্তু ঝালকাঠির রাজাপুরের পূর্ব পুটিয়াখালি গ্রামের তালুকদার বাড়ির খালের উপরের ভাঙ্গা পাটা ব্রীজের বিলায় ঘটেছে ভিন্ন ঘটনা। স্থানীয়রা সুপারি গাছের সাঁেকা দিয়ে জিবনের জুকি নিয়া ওই ভাঙ্গা ব্রীজটি পারাপার হচ্ছে। শুধু তাই নয়, স্থানীয় ২টি স্কুলের  কোমলমতি শিক্ষার্থীরা ওই ব্রীজের সাঁকো দিয়ে জীবনের ঝুকি নিয়ে পারাপার হতে গিয়ে পা পিছলে পড়ে আহতও হয়েছে অনেকে। সরেজমিনে অনুসন্দনে জানা গেছে, পূর্ব পুটিয়াখালি গ্রামের ১০৩ ও ১২০ নং দু’টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিশু শিক্ষার্থীরাসহ ভাঙা ব্রীজ দিয়ে কয়েক গ্রামের হাজার হাজার মানুষ যাতায়াত করতে দির্ঘদিন যাবৎ চরম জীবন ঝুকি চলাচল করছে। পূর্ব পুটিয়াখালি গ্রামের ৫নং ওয়ার্ডের আ’লীগ সভাপতি মোঃ ইদ্রিস তালুকদার ও স্থানীয় জালাল তালুকদারসহ একাধিক শিক্ষক এবং স্থানীয়রা অভিযোগে জানান, গত ১৫ বছর আগে এ খালের উপরে পাটাদিয়ে এ আয়রন ব্রীজ নির্মান করা হয়। নির্মানের ২/৩ বছর পরেই ব্রীজটির মধ্য স্থান থেকে পাটাতন ও লোহার পাত ভেঙ্গে যায়। ফলে ওই খালের উভয় পাশের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, শিশু ও বৃদ্ধ এবং পুটিয়াখালি বাজারে যাতায়াতকারীসহ হাজার হাজার মানুষ ওই ব্রীজের সাঁকো পারাপারে চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছে দীর্ঘদিন ধরে। ওই ব্রীজ এলাকায় কার্পেটিং রাস্তা এবং প্রায় দুই কিলোমিটার নিচু কাচা রাস্তা রয়েছে। যাহা পাকা করনের জন্য কয়েকবার চেষ্টা করেও কোন কাজ হয়নি। বর্ষা মৌসুমে হাটু পর্যন্ত কাদাপানির সৃষ্টি হয়। এতে বর্ষার মৌসুমে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয় স্থানীয়সহ যাতায়াতকারীদের। এমনকি ছোট শিশুরা বছরে ২/৩মাস ধরে স্কুলে যেতে পারে না। এ বিষয়ে উপজেলা এলজিইডি সূত্র জানায়, বরাদ্দ পেলে ব্রীজটি সংস্কার বা পুনঃনির্মান করা হবে এবং রাস্তাও সংস্কার করা হবে।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

সেই রাবি শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রীর যৌন হয়রানির অভিযোগ

আত্মহত্যা’ করা রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আকতার জাহান জলির সাবেক …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open