শনিবার, অক্টোবর ৩১, ২০২০ : ৬:৫১ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে নির্দেশনার পর : আন্দোলন প্রত্যাহার

সিলেট ভিউজ টুয়েন্টি ফোর ডট কম: শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে নির্দেশনার পর আন্দোলন থেকে সরে দাবি পূরণে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমানের দ্বারস্থ হন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষকরা।বৃহস্পতিবার (০৮ অক্টোবর) সকালে মিন্টো রোডে মন্ত্রীর বাসায় বৈঠকে গণশিক্ষা মন্ত্রী শিক্ষকদের দাবির বিষয়টি বেতন বৈষম্য নিরসন সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটিতে উত্থাপন করার আশ্বাস দিলে শিক্ষকরা তাদের আন্দোলন প্রত্যাহ‍ার করেন।ছয় দফা দাবিতে বেশ কিছু দিন ধরে কর্মবিরতি, ক্লাস বর্জনসহ নানা কর্মসূচি পালন করে আসছেন সহকারী শিক্ষকরা।সকাল সাড়ে নয়টা থেকে প্রায় এক ঘণ্টার বৈঠক শেষে বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক সমাজের সভাপতি শাহিনুর আল আমিন বাংলানিউজকে বলেন, প্রধান শিক্ষকদের সঙ্গে যে বেতনের বৈষম্য তা দূর করার জন্য ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন মন্ত্রী।বাংলাদেশ প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির সভাপতি নাসরীন সুলতানা বলেন, শিক্ষকদের ৬ দফা দাবির বিষয়টি বেতন বৈষম্য নিরসন জাতীয় কমিটিতে উত্থাপনের আশ্বাস দিয়েছেন মন্ত্রী।এখন আমরা ক্লাসে ফিরে যাবো, আন্দোলন প্রত্যাহার করে নিয়েছি।’প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, শিক্ষকদের দাবির বিষয়েটি সরকার বিবেচনা করবে। বেতন বৈষম্য নিরসন সংক্রান্ত পুনর্গঠিত জাতীয় কমিটির কাছে বিষয়টি উত্থাপিত হবে। আন্দোলনের নামে শিক্ষা ক্ষেত্রে অস্থিতিশীল পরিবেশের উদ্ভব ঘটিয়ে সরকারকে বিব্রত করার চেষ্টার অভিযোগে সংশ্লিষ্ট শিক্ষকদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বুধবার ‘বিশেষ নির্দেশনা’ দেয় মন্ত্রণালয়। এরপরই রাতে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের সঙ্গে বৈঠক করে কর্মসূচি স্থগিত করেন শিক্ষকরা।মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করে সব কর্মসূচি প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন তারা।শিক্ষক নেতাদের মধ্যে সহকারী শিক্ষক ফোরামের সভাপতি জমিস উদ্দিন সরকার, বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি জাহিদুর রহমান বিশ্বাসের নেতৃত্বে শিক্ষকবৃন্দ মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে অংশ নেন।টাইম স্কেলসহ বিভিন্ন দাবিতে এর আগে ৬ অক্টোবর আন্দোলন প্রত্যাহার করে নেয় প্রাথমিকের প্রধান শিক্ষকেরা।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

বেতন স্কেল ১০ গ্রেডে উন্নীতকরণের দাবি প্রধান শিক্ষকদের

ডেস্ক রিপোর্ট :: দ্বিতীয় শ্রেণির গেজেটেড (নন-ক্যাডার) প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণবিহীন উভয় প্রধান শিক্ষকদের প্রবেশ পদে …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open