শনিবার, নভেম্বর ২৮, ২০২০ : ৮:৪৫ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদঃ

অতর্কিত হামলা গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু

আফ্রিকার দেশ মালিতে জঙ্গিদের গুলিতে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে কর্মরত এক বাংলাদেশি সেনা সদস্য নিহত ও একজন আহত হয়েছেন। দেশটির রাজধানী বামাকোতে গত সোমবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় এই হামলা হয়। গতকাল মঙ্গলবার আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। ওই বিজ্ঞপ্তিতে আইএসপিআর জানায়, মালিতে শান্তিরক্ষী হিসেবে নিয়োজিত বাংলাদেশ ট্রান্সপোর্ট কন্টিনজেন্টের একটি গাড়িতে সন্ত্রাসীরা অতর্কিত গুলি ছোড়ে। এতে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সৈনিক নীলকণ্ঠ হাজং নিহত হন। হাতে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন সৈনিক সিরাজুল ইসলাম। তিনি বামাকোর লেভেল-২ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। আইএসপিআর এর সহকারী পরিচালক সাইদা তাপসী রাবেয়া লোপা জানান, নিহত নীল কণ্ঠ হাজং এর বাড়ি সুনামগঞ্জ জেলার ধরমপাশা। চলতি মে মাসের ১৮ তারিখ মালিতে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশনে যান তিনি। এটাই ছিল তাঁর প্রথম শান্তিরক্ষা মিশন। মালির একটি নিরাপত্তা সূত্র বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, গত সোমবার রাতে অজ্ঞাত সশস্ত্র ব্যক্তিরা দুই শান্তিরক্ষীকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। ওই শান্তিরক্ষীরা জাতিসংঘের গাড়িতে ছিলেন। গুলিতে একজন নিহত হয়েছেন। অন্যজন গুরুতর আহত। একই সূত্রের ভাষ্য, আমরা এ ঘটনার ব্যাখ্যা ও বিস্তারিত তথ্য অনুসন্ধান করছি। এটাকে সন্ত্রাসী ঘটনা হিসেবে দেখা হচ্ছে। হামলাকারীরা শান্তির দুশমন।মালিতে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশনের (মিনুসমা) একটি সূত্র এএফপিকে জানান, ওই দুই বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী বামকো বিমানবন্দর থেকে শহরের দক্ষিণে যাচ্ছিলেন। এ সময় একটি গাড়িতে থাকা অজ্ঞাত হামলাকারীরা শান্তিরক্ষীদের ওপর গুলি ছোড়ে।২০১৩ সালে মালিতে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশন (মিনুসমা) শুরু হয়। এর পর থেকে এখন পর্যন্ত ৪০ জনের বেশি শান্তিরক্ষী নিহত হয়েছেন। সেখানে ১১ হাজার শান্তিরক্ষী দায়িত্ব পালন করছেন। বিশ্বে জাতিসংঘের যত শান্তিরক্ষা মিশন আছে, তার মধ্যে মিনুসমা সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ বলে বিবেচিত।
সাধারণত দেশটির উত্তরে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষীদের ওপর নিয়মিত জঙ্গি হামলা হয়। তবে দেশটির রাজধানীতে এমন হামলা বিরল।সোমবারের আগে গত বৃহস্পতিবার মালির রাজধানীতে জাতিসংঘের একটি আবাসিক এলাকায় হামলা হয়। এতে এক বেসামরিক নিরাপত্তারক্ষী আহত হন। তবে ওই হামলায় কোনো সেনা হতাহত হননি।
আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, মালির রাজধানী বামাকোতে সোমবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় শান্তিরক্ষায় নিয়োজিত বাংলাদেশ ট্রান্সপোর্ট কন্টিনজেন্টের একটি জিপে এই হামলার ঘটনা ঘটে।নিহত নীল কণ্ঠ হাজং বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সৈনিক পদে ছিলেন। আহত সৈনিক সিরাজুল ইসলামকে বামাকোর লেভেল-২ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
একটি বার্তা সংস্থার বরাত দিয়ে ফ্রান্স টোয়েন্টিফোর ডটকমের খবরে বলা হয়,শান্তিরক্ষা মিশনের ওই গাড়ি বামকো বিমানবন্দর থেকে শহরের দক্ষিণে যাওয়ার সময় হামলার মুখে পড়ে। অজ্ঞাতপরিচয় বন্দুকধারীরা ওই গাড়িতে গুলি চালালে একজন নিহত হন এবং আরেকজনকে গুরুতর আহত হন।
বিশ্বের সংঘাতময় বিভিন্ন দেশে জাতিসংঘ মিশনে বাংলাদেশের ৯ হাজার ৩০০ শান্তিরক্ষী কাজ করছেন।
এর মধ্যে মালিতে নিয়োজিত বিভিন্ন দেশের ১০ হাজার ৩২০ জন শান্তিরক্ষীর মধ্যে পুলিশ ও সেনা সদস্য মিলিয়ে বাংলাদেশির সংখ্যা এক হাজার ৭৫৫ জন। জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশনগুলোর মধ্যে মালি মিশনই সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ বলে বিবেচিত। ২০১৩ সালে এ মিশনের কার্যক্রম শুরুর পর থেকে এ পর্যন্ত ৪০ জনের বেশি শান্তিরক্ষী নিহত হয়েছেন।দেশটির উত্তর অংশে জাতিসংঘের শান্তিরক্ষীদের ওপর প্রায়ই জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটে। এর আগে গত বুধবারও বামাকোর একটি আবাসিক এলাকায় হামলায় এক নিরাপত্তারক্ষী আহত হন।

এছাড়াও নিম্নের সংবাদগুলো দেখতে পারেন...

জনমত জরিপে ব্যবধান কমিয়ে হিলারির কাছাকাছি ট্রাম্প

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :: যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে আর বেশি সময় নেই। এরই মধ্যে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্রেট …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open